ত্বকের যত্নে গোলাপ জলের নানা ব্যবহার

উপমহাদেশে নারীদের রূপচর্চায় গোলাপ জলের ব্যবহার বহু পুরনো, এর জৌলুস কিন্তু কমেনি আজও। আপনার ত্বক শুষ্ক হোক কিংবা তৈলাক্ত, সব ধরণের ত্বকে মানিয়ে যায় প্রাকৃতিক এই নির্যাস। নানাবিধ উপকারী গুণের কারণে এর জনপ্রিয়তা আজ বিশ্বব্যাপী।

তবে গোলাপ জলের পূর্ণ কার্যকারিতা পেতে হলে কেনার আগে দেখে নিন গোলাপ জলটি ১০০% খাঁটি কিনা। গোলাপ জলের উপকারিতা পেতে হলে এটি সঠিকভাবে ব্যবহার করাও জানতে হবে, তাহলে আসুন জেনে নেই ত্বকের যত্নে কী কী ভাবে ব্যবহার করা যেতে পারে গোলাপ জলঃ

মেকআপ সেটিং স্প্রে
মেকআপ করার পর সেটিং স্প্রে আজকাল আমরা নিয়মিত ব্যবহার করে থাকি। এক্ষেত্রে গোলাপ জলও করতে পারে সেটিং স্প্রের কাজ। একটি খালি স্প্রের বোতলে গোলাপ জল ভরে নিয়মিত ব্যবহার করুন। শুধুমাত্র মেকআপ নয়, ঘুম থেকে উঠে সকালে মুখে গোলাপ জল স্প্রে করে নিলে ত্বককে দেখাবে উজ্জ্বল ও প্রাণবন্ত।

মেকআপ তুলতে
ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ ধোয়ার পর গোলাপ জলের সঙ্গে খানিকটা গ্লিসারিন মিশিয়ে তা মুখে মেখে নিন। বাকি যা মেকআপ রয়েছে তা খুব সহজেই উঠে যাবে এবং ত্বক হবে আর্দ্র ও নরম।

চোখের ক্লান্তি দূর করতে
রাতে ঘুম কম হয়েছে? ক্লান্ত দেখাচ্ছে? এক কাজ করুন, ঠান্ডা গোলাপ জল নিন, তাতে তুলা ভিজিয়ে তুলাগুলো চোখের উপর দিয়ে চুপচাপ বসে থাকুন কয়েক মিনিট। চোখের জ্বালাভাব যেমন কমবে, চোখদুটো দেখাবে সজীব।

টোনার হিসেবে
মুখ পরিষ্কারের অন্যতম ধাপ টোনিংয়ে গোলাপ জলের জুড়ি নেই। তুলার বল গোলাপ জ্বলে ভিজিয়ে তা দিয়ে মুখের ত্বকে টোনিং করতে পারেন।

ব্রণ থেকে মুক্তি
এক টেবিল চামচ লেবুর রসের সঙ্গে এক টেবিল চামচ গোলাপ জল মিশিয়ে তা মুখে লাগিয়ে রাখুন ৩০ মিনিট, এরপর ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত ব্যবহারে আপনার ত্বক হবে ব্রণ মুক্ত।

চেহারার ক্লান্তিভাব দূর
আপনার নিয়মিত ব্যবহারের ক্রিমের সঙ্গে একটু গোলাপজল মিশিয়ে মুখে মেখে নিন, ত্বকে আসবে গোলাপি আভা, পাশাপাশি ক্লান্তি ভাবও দূর হবে।

Facebook Comments